মঙ্গলবার  ২৪শে এপ্রিল, ২০১৮ ইং  |   মঙ্গলবার  ১১ই বৈশাখ, ১৪২৫ বঙ্গাব্দ

এইমাএ পাওয়া

ফতুল্লায় সহস্রধিক গ্রাহকের কোটি টাকা নিয়ে উধাও

আগস্ট ৪, ২০১৬

কোটি টাকা নিয়ে উধাও

এমরান আলী সজীব/

ফতুল্লায় পল্লী সেবা ফাউন্ডেশন (পিএসএফ) নামে ভুয়া একটি এনজিও সংস্থা গ্রাহকদের প্রায় ২ কোটি টাকা নিয়ে পালিয়েছে। বৃহস্পতিবার দুপুরে নারী-পুরুষ কয়েকশত গ্রাহক সঞ্চয় বই হাতে নিয়ে ফতুল্লা মডেল থানায় হাজির হয়ে পল্লী সেবা ফাউন্ডেশন (পিএসএফ) এর কর্মকর্তাসহ মাঠকর্মীদের বিরুদ্ধে অভিযোগ দায়ের করেন। এছাড়া ফতুল্লার ফাজিলপুরের নাসিরের স্ত্রী শাহনাজ বেগম সকল সদস্যের পক্ষে বাদী হয়ে একটি সাধারন ডায়েরী দায়ের করেন।

শাহনাজ বেগম জানান, পল্লী সেবা ফাউন্ডেশন (পিএসএফ) ফতুল্লার গাবতলী এলাকায় অফিস খুলে মাঠকর্মীরা বিভিন্ন এলাকায় গিয়ে অতিরিক্ত লোন দেয়ার প্রলোভন দেখিয়ে বিভিন্ন এলাকায় শত শত সদস্য তৈরি করেন। প্রতিটি এলাকায় গিয়ে একজন করে দল নায়ক বানিয়ে ৮/১০ জন সদস্যকে ২/৩ লাখ টাকা লোন দেয়ার নাম করে প্রতিদিন সঞ্চয়ের টাকা নেয়। এমনকি ওই দল নায়কের কাছ থেকে ৪০ হাজারসহ তার গ্রুপের প্রায় দেড় লাখ টাকা সঞ্চয় নেয়। বুধবার শাহনাজসহ তাদের কয়েকজনকে লোন দেয়ার কথা থাকলেও সবাই অফিসে গিয়ে দেখে অফিস তালা বন্ধ। এমনকি এনজিও’র কর্মকর্তাসহ মাঠকর্মীদের ফোন নাম্বার বন্ধ পাওয়া যায়।

ভূইয়ারবাগের কানুন বালা জানান, পল্লী সেবা ফাউন্ডেশন (পিএসএফ) নামে একটি এনজিও সংস্থার মাঠকর্মীরা বাড়ি বাড়ি গিয়ে সহজ সরল নারীদের নানা ধরনের প্রলোভন দেখিয়ে ১০/১২ জন করে একটি গ্রুপ করে সদসস্য অন্তভুক্ত করে লোন দেয়ার কথা বলেন। সকল সদস্যের কাছ থেকে ৫০০/১০০ টাকা করে সঞ্চয় নিয়ে প্রায় ৭০ হাজার টাকা নেয়া হয়। তাদের সবাইকে অল্প সুদে ৫০ হাজার টাকা করে লোন দেয়ার কথা জানান তিনি। বৃহস্পতিবার লোন দেয়ার কথা থাকলেও তাদের অফিসে গিয়ে জানতে পারি ফতুল্লার কয়েক হাজার লোকের প্রায় ২/৩ কোটি টাকা নিয়ে সমিতির লোকজন পালিয়ে গেছে।

টিনা বেগম জানান, এনজিও’র মাঠকর্মীরা সঞ্চয় টাকা নিয়ে দুই লাখ টাকা করে লোন দেয়ার কথা ছিল। তাদের ১০ জনের কাছ থেকে প্রায় তিন লাখ টাকা নিয়েছে। সঞ্চয় করে সমিতির কাছ থেকে লোন নিয়ে ভাল একটি কাজে লাগানোর চিন্তা ভাবনা ছিল। কিন্তু এনজিও’র নামে প্রতারক চক্র কোটি কোটি টাকা নিয়ে পালিয়ে যাওয়ার অনেক মানুষের স্বপ্ন ভেঙ্গে চুরমার করে দিয়েছে।

পঞ্চবটির গাড়ি ব্যবসায়ী মিঠুন জানান, তারা কয়েকজন মিলে সঞ্চয় করেছিলাম। এই সঞ্চয় করে ৪ লাখ টাকা লোন দেয়ার কথা ছিল। আর সেই টাকা দিয়ে ব্যবসার কাজে লাগানোর চিন্তা ভাবনা করেছিলাম। কিন্তু লোন পাওয়ার আশায় তাদের কাছ থেকে সঞ্চয়ের প্রায় এক লাখ টাকা পালিয়ে যায় সমিতির লোকজন।
ফতুল্লা মডেল থানার সেকেন্ড অফিসার এসআই গোলাম মোস্তফা জানান, পল্লী সেবা ফাউন্ডেশন (পিএসএফ) নামে একটি এনজিও সংস্থা কয়েক শত লোকের টাকা নিয়ে পালিয়েছে এ সংক্রান্তে নারী-পুরুষসহ বেশ কিছু লোকজন থানায় আসেন এবং থানায় এসে একটি অভিযোগ দায়ের করেন। আর ঘটনার তদন্ত করে আইনগত ব্যবস্থা নেয়া হবে।
নারায়ণগঞ্জ প্রতিনিধি/৪ঠা আগস্ট, ২০১৬ ইং