শুক্রবার  ২৭শে এপ্রিল, ২০১৮ ইং  |   শুক্রবার  ১৪ই বৈশাখ, ১৪২৫ বঙ্গাব্দ

এইমাএ পাওয়া

পুরুলিয়া জঙ্গলমহল থেকে প্রচুর অস্ত্র উদ্ধার

আগস্ট ৭, ২০১৬

অস্ত্র উদ্ধার

বিশ্বজিৎ দেবনাথ/

উদ্ধার হল ‘পুরুলিয়া অস্ত্রবর্ষণ কাণ্ডের ‘ অস্ত্র । এমনটাই অনুমান করছে প্রশাসন । ১৯৯৬ সালের ১৭ ডিসেম্বর পশ্চিমবঙ্গ রাজ্যের পুরুলিয়ার কোটশিলা থানা এলাকার খটঙ্গা-সহ লাগোয়া একাধিক গ্রামে যে অস্ত্র বর্ষণ হয় সেই খটঙ্গা থেকে দু’কিলোমিটারের মধ্যে শনিবার রাতে এই অস্ত্র উদ্ধার হয় ।

স্থানীয় একটি শ্মশান ও নদী সংলগ্ন জঙ্গলে মাটি খুঁড়ে একটি রকেট লঞ্চার, একটি এ কে ৪৭ ও অ্যান্টি ট্যাঙ্ক গ্রেনেড পাওয়া যায় । তবে এ কে ৪৭-র ম্যাগাজিনে কোনও গুলি ছিল না । গত ২৪ জুলাই রাতে গ্রেফতার করা হয় রথু প্রামাণিক ও জামালউদ্দিন আনসারিকে । তাদের জেরা করেই উদ্ধার হয় এই নাইন এম এম কার্বাইন সাব মেশিনগান, ম্যাগাজিন ও গুলি ।

২৫ জুলাই থেকে ১২ দিনের পুলিশি হেফাজতে ছিল অভিযুক্তরা । শনিবার দুপুরে তাদের আবার পুরুলিয়া আদালতে তোলা হয় ।অস্ত্র বর্ষণের এলাকা থেকে দু’সপ্তাহের মধ্যে দু’বার এই অস্ত্র উদ্ধার হওয়ায় পুলিশের সন্দেহ, ওই আগ্নেয়াস্ত্র সেই সময়কার হতে পারে । কোটশিলা থানার পুলিশ শনিবার রাতে এই জঙ্গলের একপ্রান্তে পাথর সরিয়ে মাটি খুঁড়ে মোটা পলিথিন থেকে এই অত্যাধুনিক অস্ত্রগুলি উদ্ধার করে । পুরুলিয়ার পুলিশ সুপার রূপেশ কুমার বলেন, “এই আগ্নেয়াস্ত্রগুলি অস্ত্র বর্ষণের সময়কার যে নয় তা একেবারেই উড়িয়ে দেওয়া যাচ্ছে না । দু’দফায় যা উদ্ধার হয়েছে তার সবগুলিই এক্সপার্টদের কাছে পাঠানো হবে । কুড়ি বছর আগের সেই হাড়হিম করা ঘটনার পর বহু অস্ত্র এখনও এই এলাকাতেই রয়ে গিয়েছে বলে মনে করেন এলাকার মানুষ । কারণ সেই সময় যারা এই বিপুল অস্ত্রশস্ত্র কুড়িয়েছিল তারা পুলিশের ভয়ে বিভিন্ন জায়গায় রেখে দেয় ।যা আজও উদ্ধার হয়নি । তবে এই অস্ত্রগুলি ধৃতরা বিক্রির ছক কষছিল বলে পুলিশ সূত্রে খবর । তবে পুরুলিয়া জেলা পুলিশ জানিয়েছে, ধৃতরা এই এলাকায় দীর্ঘদিন ধরেই এই অস্ত্রের কারবার করত । বাকিদের খোজ চলছে । আশাকরি তারাও দ্রুত ধরা পড়বে।

কলকাতা/৭ই আগস্ট, ২০১৬ ইং